1. admin@drstisimana.com : admin :
শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ০৮:১৯ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজঃ
কালিয়াকৈরে নৌকার মাঝি হলেন রেজাউল করিম রাসেল। রাজশাহীর বাঘাতে পেয়ারার ক‍্যারেটে ১০০ বোতল ফেন্সিডিলসহ আটক দুই। ময়মনসিংহের ফুলপুরে বিএমএসএফ’র কমিটি গঠন,সভাপতি মিজান সা: সম্পাদক রায়হান। গাজীপুরে আখের বাম্পার ফলনে খুশি কৃষকরা। স্থায়ী জামিন পেলেন সাংবাদিক খায়রুল আলম রফিক। নওগাঁয় র‌্যাবের অভিযানে হেরোইন ও ফেন্সিডিলসহ ৩ জন গ্রেফতার। কালিয়াকৈরে জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস পালিত। পথিকৃৎ প্রকাশনী-এর সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হলেন কথাসাহিত্যিক ও কবি শফিক রিয়ান। মুরগির মাংস খাওয়া কে কেন্দ্র করে ছেলের বউ এর লাঠির আঘাতে শাশুড়ি খুন। খুলনার পাইকগাছা নির্বাহী অফিসার মহোদয়ের হস্তক্ষেপে বাল্য বিবাহ বন্ধ মেয়ের পিতার অর্থদন্ড।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মাথার খুলিবিহীন শিশুর জন্ম।

ব্রাক্ষণবাড়িয়া জেলা প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট সময়: মঙ্গলবার, ২৫ মে, ২০২১
  • ১০৬ বার পড়া হয়েছে:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মাথার খুলি ও মগজ ছাড়া একটি কন্যাশিশু জন্ম নিয়েছে। সোমবার (২৪ মে) বিকেলে ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে শিশুটি স্বাভাবিক ভাবে জন্ম নেয়। জন্ম নেয়া শিশুটি অসুস্থ হলেও তার মা সুস্থ আছেন। হাসপাতালের গাইনি বিভাগ ও নবজাতকের পরিবার সূত্রে জানা যায়, নাসিরনগর উপজেলার গোয়ালনগরের শহীদ মিয়ার মেয়ে তানজিনা বেগমের সঙ্গে দুই বছর আগে একই উপজেলার ভলাকুটের মৃত সফিল উদ্দিনের ছেলে জসিম উদ্দিনের বিয়ে হয়। প্রায় এক বছর আগে তানজিনা গর্ভবতী হন। এরপর থেকে তিনি বিভিন্ন গাইনি চিকিৎসকের অধীনে চিকিৎসাধীন ছিলেন। তানজিনা যখন সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা তখন গাইনি চিকিৎসক তার আল্ট্রাসনোগ্রাফি করে জানান, জন্ম নিতে যাওয়া শিশুটি শারীরিক ভাবে অসুস্থ হবে এবং তার মাথার খুলি হবে না। কিন্তু চিকিৎসকের সেই কথা তানজিনার শ্বশুরবাড়ির লোকজন কর্ণপাত করেননি। সোমবার বিকেলে তানজিনার প্রসব বেদনা উঠলে ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে গাইনি বিভাগে কোনো প্রকার অপারেশন ছাড়াই শিশুটি জন্ম নেয়। শিশুটি জন্ম নেয়ার পর তার মাথার খুলি ও মগজ ছিল না। ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালের গাইনি চিকিৎসক মাহফিদা আক্তার হ্যাপী দৈনিক দৃষ্টি সীমানা কে জানান, শিশুটি মাথার খুলি ও মগজ ছাড়াই জন্ম নিয়েছে। এমনভাবে জন্ম নেয়া শিশুদের এনেনসেফ্যালি বলা হয়। এই শিশুগুলো সচরাচর ২৪ ঘণ্টা থেকে ৪৮ ঘণ্টা বেঁচে থাকে। শিশুটিকে ঢাকা শিশু হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে। তিনি বলেন, ‘শিশুটির এই জন্মগত ত্রুটির অন্যতম কারণ হলো ফলিক অ্যাসিডের অভাব। গর্ভবতী হওয়ার আগে থেকেই মায়েদের ফলিক অ্যাসিডের ট্যাবলেট খাওয়া শুরু করা প্রয়োজন।’

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
আমাদের এখান থেকে কপি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ এবং আমাদের এখানে প্রচারিত সংবাদ সম্পূর্ণ আমাদের প্রতিনিধিদের কাছ থেকে পাওয়া। কোন প্রকার মিথ্যা নিউজ হলে তার জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবে না সম্পূর্ণ দায়ী থাকিবে নিউজ পেরন কারী সাংবাদিক। (মানবিক দৃষ্টি সীমানা ফাউন্ডেশন এর একটি প্রতিষ্ঠান) 
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: FT It